রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ১১:০৮ পূর্বাহ্ন

সাতকানিয়ায় স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা: স্ত্রীকে কুপিয়ে ৯৯৯ ফোন: স্বামী আটক

শহীদুল ইসলাম বাবর
  • প্রকাশ : শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ৪৭৪
দক্ষিণ চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় স্বামীর দায়ের কোপে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। নুসরাত সারমিন রিনা (৩০) গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় দায়ের কোপে আহত হয়ে রাত আনুমানিক দশটার সময় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। উপজেলার ঢেমশা ইউনিয়নের ফকির পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। থানার দায়িত্বরত অফিসার এসআই জাকির হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।এদিকে স্ত্রীকে কুপিয়ে ৯৯৯ ফোন করে স্ত্রীকে কোপানোর কথা জানান স্বামী রহিম। পরে পুলিশ এসে রহিমকে আটক করে। রহিমের বাড়ি ঢেমশা ফকির পাড়া হলেও তিনি দীর্ঘদিন বান্দরবনের রোয়াংছডিতে বসবাস করতেন। তিনি সেখানকার উপজেলা  আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন। আব্দুর রহিমের প্রতিবেশি কেরানীহাট ব্যবসায়ী সমবায় সমিতির সাবেক পরিচালক ওমর ফারুক জানান, রিনা স্বামী আব্দুল রহিম বেশ কিছু দিন থেকে মানসিক সমস্যায় ভুগছিলেন। তার চিকিৎসাও করানো হচ্ছে। এরই মধ্যে ঘরে থাকা দা দিয়ে স্ত্রীকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। বাড়ির অন্য লোকজন আহত রিনাকে প্রথমে কেরানীহাটস্থ একটি বেসরকারি ক্লিনিকে নিলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রামে প্রেরণ করেন। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।
এ বিষয়ে সাতকানিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আনোয়ার হোসেন বলেন, আব্দুর রহিম স্ত্রীকে উপুর্যপুরি কুপিয়ে নিকটস্থ তার বোনের বাড়িতে দিয়ে আসে। পরে পুলিশের জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯ এ ফোন করে স্ত্রীকে কোপানোর কথা জানায়। পরে পালানোর চেষ্টা করে। খবর পেয়ে দ্রæত থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ ও ঢেমশা তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ পরিদর্শক জায়েদ নুরের নেতৃত্বে পুলিশ আব্দুর রহিমকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। বর্তমানে আব্দুর রহিম থানায় আটক রয়েছে।

Share This Post

আরও পড়ুন