রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ১১:১৭ পূর্বাহ্ন

বান্দারবানের সুয়ালকে হামলা ঘরবাড়ি ভাংচুর ও লুটপাটের অভিযোগ

Reporter Name
  • প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২০
  • ৬৬

বান্দরবান সদর উপজেলাধীন সুয়ালক ইউনিয়নের মইশখালী পাড়ায় ঘরবাড়ি ভাংচুর,স্বর্ণলকারলুটপাট সহ ঘরের মালিক কে আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
মইশখালী পাড়ার হাজ্বি শফিকুর রহমান(কইডা হাজি) তারপুত্র ও কিছু সন্ত্রাসী ১৩.১০.২০২০ ভোর ৪টায় এই হামলা ও লুটপাট চালিয়ে বলে অভিযোগ করেছেন কইডা হাজি’র ছোট ভাই অসিউর রহমান। ওসিউর রহমান বলেন মইশখালী পাড়াস্হ আমার বাড়িতে ঘুমাচ্ছিলাম, ভোর ৪টার সময় হঠাৎ আমার বড় ভাই শফিকুর রহমান ও তার পুত্র ফরিদ,জাহাঙ্গীর ও কিছু সন্ত্রাসী অতর্কিত হামলা চালায়। এসময় আমার কাছরথেকে নগদ টাকা,রক্ষিত স্বর্ণলকার নিয়ে যায় এবং আসবাবপত্র ভাংচুর করে। তিনি আরো জানান তিন হোল্ডিংএ ওনার নামে প্রায় ৩ একর জমি তৌজি ভুক্ত আছে,কিন্তু তার বড় ভাই কইডা হাজি ও তার সন্ত্রাসী পুত্র জাহাঙ্গীর আমার জমি দখল করার পায়তারা করছে দীর্ঘদিন ধরে। তিনি আরো বলেন আমার ঘর ভাংচুর এর সময় স্হানীয় ইউপি সদস্য মোঃ সবুর উপস্থিত ছিলেন এবং তিনি বারংবার নিষেধ করার পরও তারা ভাংচুর ও লুটরাজ চালায়। স্হানীয় ইউপি সদস্য মোঃ সবুর জানান হাজ্বি শফির পুত্রদের নিষেধ করার পরও ভাংচুর চালায়। উল্লেখ্য সুয়ালক ইউনিয়ন পরিষদে ও সদর উপজেলা পরিষদে এ বিষয়ে সালিশ হয়। ইউপি চেয়ারময়ান ও উপজেলা চেয়ারম্যানের সিদ্ধান্ত অমান্য করেন কিইডা হাজি। মইশখালী পাড়ার এলাকাবাসী জানায় হাজ্বি শফিকুর রহমান প্রকাশ কইডা হাজি অত্যন্ত খারাপ প্রকৃতির লোক,মামলাবাজ কইডা হাজি ও তার সন্ত্রাসী পুত্র জাহাঙ্গীর এর হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

Share This Post

আরও পড়ুন